পিঠের ব্যথা কমানোর যাদুকরী উপায়

backboon painব্যস্ত জীবনের কাজের চাপে অথবা বয়সের ভারে আধিকাংশ মানুষই এখন পিঠে, ঘাড়ে বা কোমরে ব্যথার সমস্যায় ভোগেন। তবে এ সমস্যা শুধু বয়স্কদের হয় বললে ভুল বলা হবে। ভারী ব্যাগ বয়ে স্কুলের ছোটো ছোটো বাচ্চাদেরও আজকাল পিঠে ব্যথা হচ্ছে।

অফিসের চেয়ারে বসে যাদের ১২-১৩ ঘণ্টা কাজ করতে হয়, তাদের কষ্ট সবচেয়ে বেশি। স্পাইনাল কর্ডের ১২টা বেজে যায়। স্পনডিলোসিসে অনেকেই আক্রান্ত হয়ে পড়েন। তবে ঘাবড়ানোর কারণ নেই। এই সমস্যারও উপায় আছে-

১. অফিসে রিভলভিং চেয়ারে একটানা বসে থাকবেন না। এতে মেরুদণ্ডের কোনো একটি বিশেষ জায়গাতেই বেশি চাপ পড়বে। তাই ঘনঘন বসার ধরন পালটান।

২. সোজা বসে কাজ করবেন। কুঁজো হবেন না। এতে মেরুদণ্ড বেঁকে যায়।

৩. ঘুমানোর সময় পাশ বালিশের পজিশন পাল্টে নিন। সবচেয়ে ভালো হয় যদি সোজা হয়ে ঘুমোনোর চেষ্টা করুন।

৪. নিয়মিত ব্যায়াম করুন। এতে শরীর ফ্লেক্সিবল হবে।

৫. ভিটামিন ‘ডি’ যুক্ত খাবার খান।

৬. প্রতিদিন সকালে সূর্যের আলোয় গিয়ে দাঁড়ান। হালকা রোদ শরীরকে চাঙা করে তুলবে।

Pin It